শুক্রবার ১৯শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৬ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

যে কোনো মূল্যে বুয়েটে ছাত্র রাজনীতি দেখতে চাই: সাদ্দাম হোসেন

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   সোমবার, ০১ এপ্রিল ২০২৪ | প্রিন্ট

যে কোনো মূল্যে বুয়েটে ছাত্র রাজনীতি দেখতে চাই: সাদ্দাম হোসেন

যে কোনো মূল্যে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) ছাত্র রাজনীতি দেখতে চান বলে উল্লেখ করেছেন ছাত্রলীগের সভাপতি সাদ্দাম হোসেন। সোমবার (১ এপ্রিল) বুয়েটে ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধের বিজ্ঞপ্তি হাইকোর্ট স্থগিত করার পর এক প্রতিক্রিয়ায় তিনি এ কথা বলেন।

সাদ্দাম হোসেন বলেন, নিয়মতান্ত্রিক রাজনীতি ও সংবিধান প্রদত্ত আমাদের যে অধিকারগুলো ছিল সেগুলো এবং বুয়েটের সংবিধানবিরোধী, শিক্ষাবিরোধী মৌলিক অধিকারবিরোধী যে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছিল, সে সিদ্ধান্ত নিয়ে রাজনৈতিকভাবে আন্দোলন করছিলাম। আমরা আইনের আশ্রয় নিয়ে রিট করার চেষ্টা করেছিলাম।

তিনি বলেন, হাইকোর্টে রিটের পর আদালত যে আদেশ দিয়েছেন, বাংলাদেশের সংবিধান এবং বুয়েটের যে অধ্যাদেশ রয়েছে, সেই আলোকে নিয়মতান্ত্রিক ছাত্ররাজনীতি প্রতিষ্ঠিত করার লক্ষ্যে কাজ করবো।

যে কোনো মূল্যে বুয়েটে ছাত্র রাজনীতি দেখতে চান উল্লেখ করে ছাত্রলীগ সভাপতি বলেন, বুয়েট প্রশাসন ছাত্ররাজনীতি নিশ্চিত ও ২১ শতকের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলার জন্য যদি কোনো বিধিবিধান দেয়, সেগুলো আমরা মেনে কাজ করবো।

বুয়েটের সব শিক্ষার্থীর প্রতি আহ্বান জানিয়ে সাদ্দাম বলেন, গণতান্ত্রিক মূল্যবোধ প্রতিষ্ঠা, শিক্ষার্থীদের নেতৃত্বের বিকাশ ও অধিকার আদায়ের জন্য সেখানে যেন নিয়মতান্ত্রিক ছাত্ররাজনীতি প্রতিষ্ঠা করা হয়। প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের মূল্যবোধ প্রতিষ্ঠার জন্য শিক্ষার্থীদের নেতৃত্ব বিকাশের জন্য কাজ করবো আমরা।

বুয়েট প্রশাসনের প্রতি অনুরোধ জানিয়ে সাদ্দাম হোসেন বলেন, ছাত্র রাজনীতির মধ্যে কোনো নেতিবাচক উপাদান ও বুয়েট অধ্যাদেশের সঙ্গে কোনো বিষয়ে সাংঘর্ষিক মনে হয় এবং সংবিধান অনুযায়ী কোনো সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে তাহলে আমরা সেটিকে স্বাগত জানাবো। আমরা যে কোনো মূল্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়মতান্ত্রিক ছাত্র রাজনীতি দেখতে চাই।

২০১৯ সালে আবরার হত্যার ঘটনার বিষয়ে ছাত্রলীগ সভাপতি বলেন, আবরার হত্যার ঘটনায় মর্মাহত। ভবিষ্যতে যাতে এমন অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা না ঘটে। এর আগেও স্বাধীনতাবিরোধী মৌলবাদ রাজনৈতিক সংগঠনের অনেকে এমন ন্যক্কারজনক ঘটানোর পর তাদের বিদেশে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। আর আবরার হত্যার সঙ্গে যারা জড়িত তাদের সবাইকে আইনের আওতায় আনা হয়েছে। বিচারের মুখোমুখি করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, শুধুমাত্র ‘রাজাকারদের বিচার চাই’- এই কথা বলার কারণে স্বাধীনতাবিরোধী মৌলবাদী শক্তির হাতে নির্মমভাবে হত্যার শিকার হয়েছিলেন আদীপ রায়হান দীপ। সিলেক্টিভ জাস্টিজ, সিলেক্টিভ নৈতিকতার কারণে বিষয়টি সামনে নিয়ে আসেনি।

ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি সাদ্দাম সাংবাদিকদের বলেন, রাজনীতির ফলে যাতে অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা না ঘটে সে বিষয়ে বুয়েটের নিয়মনীতি মেনে রাজনীতি করবে ছাত্রলীগ।

বুয়েটে ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধ করে ২০১৯ সালে জারি করা প্রজ্ঞাপন স্থগিত করেছে হাইকোর্ট। একই সঙ্গে বুয়েট কর্তৃপক্ষের এই সিদ্ধান্ত কেন অবৈধ ঘোষণা করা হবে না জানতে চেয়ে রুল জারি করেন হাইকোর্ট।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১৬:৪৮ | সোমবার, ০১ এপ্রিল ২০২৪

Swadhindesh -স্বাধীনদেশ |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement
Advisory Editor
Professor Abdul Quadir Saleh
Editor
Advocate Md Obaydul Kabir
যোগাযোগ

Bangladesh : Moghbazar, Ramna, Dhaka -1217

ফোন : Europe Office: 560 Coventry Road, Small Heath, Birmingham, B10 0UN,

E-mail: news@swadhindesh.com, swadhindesh24@gmail.com