শুক্রবার ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১০ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম >>
শিরোনাম >>

নওগাঁয় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে খোলা আকাশের নিচে ১৯ টি পরিবার

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   রবিবার, ১১ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ | প্রিন্ট

নওগাঁয় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে খোলা আকাশের নিচে ১৯ টি পরিবার

নওগাঁ প্রতিনিধি : নওগাঁর বদলগাছী ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ১৯টি পরিবারের ঘর সহ যাবতীয় আসবাবপত্র পুড়ে ছাই হয়েছে। এছাড়াও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ১০ থেকে ১২টি পরিবার তবে কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনাই।শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারী ) দুপুর ২ টায় উপজেলার আধাইপুর ইউনিয়নের রসূলপুর গ্রামের আদিবাসী পাড়ায় এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

বদলগাছী ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশন অফিসার মোঃ মহিদুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। তবে আগুনের সূত্রপাত সম্পর্কে বলেন শর্ট সার্কিট থেকে এই  আগুন লাগতে পারে বলে জানান তিনি। আরো বলেন তিনি এটি ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড ছিল এই আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে আড়াই ঘন্টার মতো সময় লেগেছে।
ক্ষতিগ্রম্ত বিমল চন্দ্র বলেন, আমার বাড়িতে বৈদ্যুতিক তার থেকে আগুনের সূত্রপাত শুরু হয়। এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় আমারসহ আরও ১৯ টি পরিবারের ঘরসহ যাবতীয় আসবাবপত্র পুড়ে ছাই হয়েছে। এই আগুনের শুরু থেকেই আমরা অনেক চেষ্টা করেও আগুন নিয়ন্ত্রণ করতে পারি নাই। পরে ফায়ার সার্ভিস এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।
প্রত্যক্ষদর্শী শাহীনুর ইসলাম বলেন, আগুনে যাদের ঘর পুড়েছে তারা সবাই খেটে খাওয়া দিনমজুর। এই আগুন এমন ভাবে শুরু হয়েছে কোনো ঘর থেকেই কিছু উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। ঘরে থাকা চাল, ডাল, খাতা কলম, টাকা-পয়সা স্বর্ণলোকার,কাপড়-চোপড় ও শীতের পোশাক  সহ সব পুড়ে ছাই এবং তিনটি গবাদি পশু পুড়ে গিয়েছে  এই পরিবারগুলো সব হারিয়ে একদম নিঃস্ব রাতের খাবার পরনের কাপড় ও ঘুমানোর জায়গাও নেই এখন।
ফেরদৌস নামে এক ব্যক্তি বলেন, আজকের অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় এই ব্যক্তিগুলোর বিপুল পরিমাণ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে কমপক্ষে -৩০-৩৫ লাখ টাকার ক্ষতি  হয়েছে এখন তারা নিঃস্ব।
সহকারী কমিশনার (ভূমি) আতিয়া খাতুন বলেন, অগ্নিকাণ্ডের ঘটনাটি মর্মান্তিক একটি ঘটনা সেখানে ১৯ টি পরিবারের ঘরবাড়ী সব পুড়ে ছাই। প্রত্যেক পরিবার কে নগদ পাঁচ হাজার টাকা দুই প্যাকেট শুকনো খাবার,এবং দুটি করে কম্বল দেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি । এছাড়াও আধাইপুর ইউনিয়ন পরিষদ এবং  মুক্তিযোদ্ধাদের সাবেক কমান্ডার জবির উদ্দিন (এফএফ) পক্ষ থেকে প্রত্যেক ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার কে একটি শাড়ী এবং লুঙ্গি দিওয়া হয়।
Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১২:০৯ | রবিবার, ১১ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

Swadhindesh -স্বাধীনদেশ |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর

Advisory Editor
Professor Abdul Quadir Saleh
Editor
Advocate Md Obaydul Kabir
যোগাযোগ

Bangladesh : Moghbazar, Ramna, Dhaka -1217

ফোন : Europe Office: 560 Coventry Road, Small Heath, Birmingham, B10 0UN,

E-mail: news@swadhindesh.com, swadhindesh24@gmail.com